সিলেটSunday , 19 February 2023
  1. আইন-আদালত
  2. আন্তর্জাতিক
  3. উপ সম্পাদকীয়
  4. খেলা
  5. ছবি কথা বলে
  6. জাতীয়
  7. ধর্ম
  8. প্রবাস
  9. বিচিত্র সংবাদ
  10. বিনোদন
  11. বিয়ানী বাজার সংবাদ
  12. ব্রেকিং নিউজ
  13. মতামত
  14. মুক্তিযুদ্ধ ও বঙ্গবন্ধু
  15. রাজনীতি

ছন্দময় নিউক্যাসলের জয়রথ থামাল লিভারপুল

Link Copied!

স্পোর্টস ডেস্ক:
ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের চলতি মৌসুমে নাজুক অবস্থানে রয়েছে লিভারপুল ও চেলসির মতো পরাশক্তি দল। গত ম্যাচ দিয়ে লিভারপুল হারের বৃত্ত থেকে বের হয়েছে। সেই জয় এবার ছন্দে থাকা নিউ ক্যাসলের বিপক্ষের ম্যাচেও টেনে নিয়ে গেল সালাহরা। টানা ১৭ ম্যাচ ধরেই নিউক্যাসলের জয়রথ চলছিল। ১০ জনের দলে পরিণত হয়ে তারা লিভারপুলের কাছে হেরেছে ২-০ গোলে।

নিউক্যাসলের মাঠে আগের ম্যাচের জয়ের ধারাবাহিকতা ধরে রাখার মিশনেই নেমেছিল ইয়ুর্গেন ক্লপ। টানা দুই ম্যাচের জয়ে সালাহরা যেন সেই ছন্দকে দীর্ঘায়িত করার ইঙ্গিত দিয়ে রাখল।

ম্যাচের ৪র্থ মিনিটেই গোল খেয়ে বসছিল লিভারপুল। তবে প্যারাগুয়ের মিডফিল্ডার মিগেল আলমিরনের শটটি রুখে দেন ব্রাজিলিয়ান গোলরক্ষক এলিসন বেকার। এর মিনিট ছয়েক পরেই প্রথম প্রথম সুযোগেই নুনেস লিভারপুলকে লিড এনে দেন। ট্রেন্ট-অ্যালেকজ্যান্ডার আর্নল্ডের দারুণ ক্রসে উরুগুয়ের এই ফরোয়ার্ড পা ও বুক দিয়ে বল নিয়ন্ত্রণে নিয়ে বক্সে ঢুকে ডান পায়ের শটে গোলটি করেন। প্রিমিয়ার লিগে নভেম্বরের পর প্রথম গোল করলেন তিনি।

প্রথম গোলের ধাক্কা না কাটতেই ১৭তম মিনিটে নিউক্যাসলের পোস্টে আবারও আঘাত আসে। মোহামেদ সালাহর চিপ করে বাড়ানো বলটি নিচু শটে কোডি হাকপো বল জালে জড়ান। এই ডাচ উইঙ্গার ২-০ গোলে এভারটনকে হারানোর ম্যাচেও দ্বিতীয় গোলটি করেছিলেন। তাদের হতাশার গল্প একটু পরে আরো জোরালো হয়। আচমকা এক প্রতি-আক্রমণে মিশরীয় মোহামেদ সালাহকে রুখতে বক্সের বাইরে ছুটে যান নিউক্যাসল গোলরক্ষক নিক পোপ। প্রথমে হেডে ক্লিয়ার করতে ব্যর্থ হওয়ার ফলশ্রুতিতে হাত দিয়ে বল ধরে ফেলেন তিনি। ফলস্বরূপ তাকে লাল কার্ড দেখাতে রেফারিকে দ্বিতীয়বার ভাবতে হয়নি।

বিরতি আগেই দুই গোল হজম ও গোলরক্ষককে হারানোর ধাক্কা বেশ নাড়া দিয়েছিল নিউক্যাসলকে। তবে সেটি সামলে তারা লিভারপুলের রক্ষণে চাপ বাড়াতে থাকে। ৩১তম মিনিটে দারুণ একটি সুযোগও পায় তারা; কিন্তু অ্যালান সাঁ-মাক্সিমাঁর শট এক হাত দিয়ে কর্নারের বিনিময়ে ঠেকান এলিসন। ১০ মিনিট পর ড্যান বার্নের হেড পোস্টে লাগলে ব্যবধান থাকে আগের মতোই।

বিরতির পরও চলতে থাকে আক্রমণ-পাল্টা আক্রমণের জমজমাট লড়াই। ৫৭তম মিনিটে ব্যবধান আরও বাড়ানোর সুযোগ পেয়েও কাজে লাগাতে পারেনি লিভারপুল। নুনেসের শট বাঁ দিকে ঝাঁপিয়ে ফেরান গোলরক্ষক। ৮২তম মিনিটে পাল্টা আক্রমণে ভালো একটি সুযোগ তৈরি করে নিউক্যাসল। তবে ক্যালাম উইলসনের শট এলিসন ঠিক সময়ে লাফিয়ে রুখে দেন। ম্যাচের বাকি সময়ে আর কেউ স্কোর করতে না পারায় ব্যবধান আর বাড়েনি।

এর মাধ্যমে লিগে দ্বিতীয় হারের তেতো স্বাদ পেল নিউক্যাসল। এর আগে চলতি মৌসুমে টানা ১৭ ম্যাচ অপরাজিত ছিল নিউক্যাসল। সাড়ে পাঁচ মাস তাদের অপরাজেয় থাকার ধারাবাহিকতায় ছেদ ঘটিয়েছে ক্লপের দল। এ নিয়ে নিউক্যাসল এবারের ইংলিশ লিগে এখন পর্যন্ত দুই ম্যাচে হারল। গত ৩১ আগস্ট প্রথম হারটাও এসেছিল লিভারপুলের বিপক্ষে।

এই জয়ে ২২ ম্যাচে ১০ জয় ও পাঁচ ড্রয়ে ৩৫ পয়েন্ট নিয়ে অষ্টম স্থানে উঠে এসেছে লিভারপুল। নিউক্যাসলের চেয়ে ৬ পয়েন্ট পিছিয়ে আছে অ্যানফিল্ডের দল। ২৩ ম্যাচে ৪১ পয়েন্ট নিয়ে নিউক্যাসলের অবস্থান চতুর্থ।